শনিবার, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ০২:১৪ পূর্বাহ্ন

প্রতিনিধি আবশ্যক :
বহুল প্রচারিত অনলাইন পত্রিকা জয় বাংলা নিউজ ডট কম ( www.joibanglanews.com)এর জন্য জরুরী ভিত্তিতে দেশের বিভিন্ন জেলা, উপজেলা/থানা এবং বিশ্ববিদ্যালয় ভিত্তিক (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি আবশ্যক। আগ্রহী প্রার্থীদের পাসপোর্ট সাইজের ১ কপি ছবি, জাতীয় পরিচয় পত্রের ফটোকপি, অভিজ্ঞতা ( যদি থাকে) উল্লেখ পূর্বক জীবন বৃত্তান্ত এবং মোবাইল নাম্বার সহ ইমেইলে ( joibanglanews@gmail.com ) আবেদন করতে হবে।
২০ কোটি টাকার সফটওয়্যার চুরি

২০ কোটি টাকার সফটওয়্যার চুরি

বিজ্ঞাপন

জয় ডেক্স : প্রতারণা করে দেশের সুনামধন্য সফটওয়্যার ডেভেলপমেন্ট প্রতিষ্ঠান বিগব্যাগ কম্পিউটারস লিমিটেডের প্রায় ২০ কোটি টাকার সফটওয়্যার চুরি করেছে শাহজালাল শাহিন নামে একজন ইঞ্জিনিয়ার। প্রথমে জিডি এবং পরবর্তীতে মামলা করায় শুক্রবার তেজগাও থানা পুলিশ ধৃত সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার শাহজালাল শাহিনকে মিরপুর মডেল থানার সহায়তায় মিরপুর মনির উদ্দিন মাকেট থেকে গ্রেফতার করে। পুলিশের হাতে আটক শাহজালাল শাহিন চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা থানার আজমপুর গ্রামের মৃহ আজহারুল হকের সন্তান।  আটক শাহজালাল শাহিনকে আদালতে ওঠানো হলে তাকে জামিন না দিয়ে জেলহাজতে পাঠায় আদালত।

মামলা সূত্রে জানা যায়, শাহজালাল শাহিন বিগব্যাগ কম্পিউটারস লিমিটেড এ প্রায় দশ বছর যাবৎ সিনিয়র সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার হিসেবে কর্মরত ছিলেন। তার মাধ্যমে বিগব্যাগ কম্পিউটারস লিমিটেড প্রায় অর্ধশতাধিক প্রতিষ্ঠানে বিক্রিয়ত্তর সেবা প্রদান করতো। গত ১৭ অক্টোবর অফিস চলাকালীন দুপুর দেড়টার দিকে অফিসের গুরুত্বপূর্ণ প্রায় ২০ কোটি টাকা মুল্যের সফটওয়্যার, সফটওয়্যারের সোর্সকোড এবং নগদ পঞ্চাশ হাজার টাকা চুরি করে পালিয়ে যান। তার সাথে ওই অফিসের কতৃপক্ষ যোগাযোগ করলে তাতে সে সাড়া দেন নি। পরবর্তীতে বিগব্যাগ কম্পিউটারস লিমিটেডের পক্ষ থেকে তেজগাও থানায় জিডি করা হয় এবং বেসিসে (বাংলাদেশে সফটয়্যার এসেসিয়েসন) অভিযোগ দায়ের করা হয়। সবশেষ ৫ ডিসেম্বর আসামীর বিরুদ্ধে মামলা করা হয়। মামলার পর আসামীকে আটক করে তেজগাঁও থানা পুলিশ।

বিগব্যাগ কম্পিউটারস লিমিটেড এর সাথে যোগাযোগ করা হলে কোম্পানির জিএম মাহবুবুর রহমান জানান, ‘শাহজালাল শাহিন বিগব্যাগ কম্পিউটারস-এ দশ বছর যাবত চাকুরি করেছেন। চাকুরিরত অবস্থায় তার মাধ্যমে গুরুত্বপূর্ণ ল্যাব ম্যানেজমেন্ট সফটওয়্যার এর বিক্রয় উত্তর সেবার জন্য প্রায় অর্ধ শতাধিক হসপিটাল এবং ডায়াগনস্টিক সেন্টারে পাঠানো হত। আমরা জানতে পেরেছি সে আমাদের এখানে কর্মরত অবস্থায় এই সফটওয়্যার বিভিন্ন জায়গায় চুরি করে বিক্রি করেছেন এবং অর্থ আত্মসাত করেছেন। একই সঙ্গে তার মাধ্যমে সেবা দেওয়া প্রতিষ্টানগুলোতে চলমান সফটওয়্যারগুলোর সোর্স কোড বুঝিয়ে না দিয়ে বেশ কিছু সফটওয়্যার চুরি করে নিয়ে যায়। সোর্স কোড বুঝিয়ে না দেওয়ায় হাসপাতালে চলমান সফটওয়্যারগুলো অধিক অর্থ ব্যয় করে বিকল্প পদ্ধতিতে চালানো হচ্ছে। সোর্স কোড বুঝিয়ে না পেলে মারাত্মক ক্ষতির মুখে পড়বে অনেক হাসপাতাল, ডায়াগনস্টিক সেন্টার, প্যাথলজিক্যাল ল্যাব ও বিগব্যাগ কম্পিউটারস লিমিটেড।’

মাহবুবুর রহমান বলেন, ‘আমাদের সফটওয়্যার কপি রাইট করা। আমরা আপনাদের গণমাধ্যমকে অনুরোধ করতে চাই, যে কোন প্রতিষ্ঠান যেন তার নিকট থেকে এই সফটওয়্যার ক্রয় এবং সেবা যেন গ্রহণ না করেন ও প্রতারণার শিকার না হন। তার মাধ্যমে সফটওয়্যার ক্রয় এবং সেবা গ্রহণ করে খতির সম্মুখিন হলে বিগব্যাগ কর্তৃপক্ষ দায়ী থাকবে না এবং কোন প্রতিষ্ঠান যদি তার কাছ থেকে সফটওয়্যার নেয়, তাহলে ঐ প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে আমরা আইনী পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

সূত্র : সকালের সময়

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved  2019 Joibanglanews.com এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা নিষেধ।
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
Translate »