মঙ্গলবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ০২:৫৭ পূর্বাহ্ন

প্রতিনিধি আবশ্যক :
বহুল প্রচারিত অনলাইন পত্রিকা জয় বাংলা নিউজ ডট কম ( www.joibanglanews.com)এর জন্য জরুরী ভিত্তিতে দেশের বিভিন্ন জেলা, উপজেলা/থানা এবং বিশ্ববিদ্যালয় ভিত্তিক (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি আবশ্যক। আগ্রহী প্রার্থীদের পাসপোর্ট সাইজের ১ কপি ছবি, জাতীয় পরিচয় পত্রের ফটোকপি, অভিজ্ঞতা ( যদি থাকে) উল্লেখ পূর্বক জীবন বৃত্তান্ত এবং মোবাইল নাম্বার সহ ইমেইলে ( joibanglanews@gmail.com ) আবেদন করতে হবে।
নওগাঁর অধিকাংশ রাস্তাগুলোর বেহাল দশা

নওগাঁর অধিকাংশ রাস্তাগুলোর বেহাল দশা

ওমর ফারুক, নওগাঁ জেলা প্রতিনিধিঃ-ছোট যমুনা নদীর দুইতীর জুড়ে অবস্থিত তিলোত্তমা শহর নওগাঁ। নওগাঁর প্রধান শহরটি পৌরসভার মধ্যে অবস্থিত। নওগাঁ পৌরসভাটি প্রথম শ্রেণির পৌরসভা হলেও দীর্ঘদিন যাবত আধুনিক সুযোগ-সুবিধা থেকে বঞ্চিত হয়ে আসছে পৌরবাসী।

বর্তমানে পৌরসভার পালপাড়া-ঘোষপাড়া রাস্তাসহ অধিকাংশ জনগুরুত্বপূর্ন রাস্তাগুলোর অবস্থাখুবই বেহাল। দীর্ঘদিন মেরামত কিংবা সংস্কার না করায় দুর্ভোগদিন দিন চরম আকার ধারন করছে। কিন্তু এই বেহাল রাস্তাগুলো নিয়েকোন পদক্ষেপ নেই পৌর কর্তৃপক্ষের। সূত্রে জানা গেছে, ১৯৬৩সালে স্থাপিত নওগাঁ পৌরসভা।

৩৮.৬৪বর্গ কিলোমিটার এলাকা নিয়ে গঠিত নওগাঁ পৌরসভা। শহরের প্রধান সড়ক ছাড়া অধিকাংশ রাস্তাগুলোর বেহাল দশা। পৌরসভার৫নং ওয়ার্ডের সকল রাস্তাগুলো বছরের পর বছর সংস্কার কিংবা মেরামতনা করায় বেহাল দশায় পরিণত হয়েছে। ওয়ার্ডের পালপাড়া ব্রীজেরমোড় থেকে ঘোষপাড়া হয়ে শহরের মধ্যে আসার একমাত্র রাস্তাটিরঅবস্থা খুবই বেহাল ও বিপদজনক। রাস্তার অধিকাংশ স্থানের পাঁকা উঠেগিয়ে সৃষ্টি হয়েছে বড় বড় গর্তের। শুকনো মৌসুমে তেমন কোনসমস্যা না হলেও বর্ষা মৌসুমে দুর্ভোগ চরম আকার ধারন করে।

এইওয়ার্ডে বসবাসরত প্রায় ১০ হাজার মানুষদের চলাচলের জন্য একমাত্র এই রাস্তাটি মরনফাঁদে পরিণত হয়েছে। প্রতিনিয়তই গর্তে ছোট-বড় যানবাহন উল্টে গিয়ে ঘটছে দুর্ঘটনা। স্কুলের শিক্ষার্থীদেরওপ্রতিদিন চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। শুধু স্থানীয়রা নয় এইরাস্তা দিয়ে নওগাঁ শহরের আসার জন্য রাণীনগর ও আত্রাই উপজেলার মানুষরাও চলাচল করে। এছাড়াও শহরের প্রধান অংশে অবস্থিত কাঁচাবাজার, চুড়িপট্টি, হাসপাতাল, ডাবপট্টি, সোনারপট্টি, শিবপুর, হলদিবাড়ি রাস্তাসহ পৌরসভার অধিকাংশ রাস্তার অবস্থা খুবই নাজুক।

বর্তমানে এইরাস্তা গুলো চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। আসন্ন দুর্গা উৎসবের আগেই এই সব রাস্তাগুলো আপাতত চলাচলের জন্য মেরামত করারদাবী পৌরবাসীর।

শহরের কালিতলা এলাকার বাসিন্দা প্রকাশ কুমার, রামুদা, আশিষকুমার ঘোষসহ আরো অনেকেই বলেন, শহরের এই সব রাস্তা দেখে মনে হয় যে এখনো আমরা বর্বর ও আদিযুগে বসবাস করছি। যে যুগেরাস্তা-ঘাট ও যোগাযোগ ব্যবস্থা তেমন উন্নত ছিলো না। কিন্তু একটি দেশের রাস্তা ও যোগাযোগ ব্যবস্থার আধুনিকায়ন ছাড়া সামগ্রিক উন্নয়ন কোন ভাবেই সম্ভব নয়। ৪-৫ বছর যাবত শহরেরপালপাড়া ব্রীজের মোড় থেকে ঘোষপাড়া হয়ে শহরে প্রবেশের একমাত্র রাস্তাটির অবস্থা খুবই বেহাল। এই রাস্তার কোন সংস্কার কিংবা মেরামত না করায় এখন বিপদজনক মরণফাঁদে পরিণত হয়েছে। এই রাস্তাদিয়ে চলাচল করার সময় শিক্ষার্থীরা উল্টে পড়ে যায়, রাস্তার কাঁদায় নষ্টহয় পড়নের পোষাক।

তারা আরো বলেন, কিন্তু প্রথম শ্রেণির পৌরসভা কর্তৃপক্ষের কোন নজরনেই হিন্দু অধ্যুষিত এলাকার এই রাস্তার। আসন্ন পূজায় এই রাস্তাদিয়ে কয়েক হাজার মানুষ যাতায়াত করবে কিন্তু রাস্তার যে বেহাল অবস্থা তাতে রাস্তার দুর্ভোগ কয়েক গুন বেড়ে যাবে বলে আমরা আশঙ্কায় রয়েছি। যদি পূজার আগেই এই রাস্তাগুলো আপাতত চলাচলের জন্য মেরামত করা যেতো তাহলে পথচারীসহ স্থানীয়রা একটু হলেও স্বস্তি পেতো।

নওগাঁ পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ড কমিশনার শেখ মোজাম্মেল হক মজনু বলেন, একজন কমিশনার হিসেবে আমি সব সময় আমার এলাকাকেআধুনিকায়ন করা চেষ্টা করেছি। কিন্তু সামগ্রিক উন্নয়ন, রাস্তা-ঘাটের উন্নয়নসহ অন্যান্য বড় ধরনের উন্নয়ন করা আমার একার পক্ষেসম্ভব নয়। এই উন্নয়নগুলো সরকার ও পৌর মেয়রের সার্বিক সহযোগিতা নিয়েই করা সম্ভব। তবে আমি ব্যক্তিগত ভাবে ও পৌরসভার সহযোগিতা নিয়ে রাস্তার যে সব স্থানের অবস্থা খুবই বেহাল সেই অংশগুলোতে আপাতত চলাচলের জন্য সংস্কার কাজ শুরু করেছি। আশা রাখি আসন্ন পূজায় এই পালপাড়া রাস্তা দিয়ে একটু হলেও স্বস্তিতে চলাচল করতে পারবেন পথচারী ও স্থানীয়রা।

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved  2019 Joibanglanews.com এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা নিষেধ।
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
Translate »