মঙ্গলবার, ২৮ Jun ২০২২, ১১:৫১ পূর্বাহ্ন

প্রতিনিধি আবশ্যক :
বহুল প্রচারিত অনলাইন পত্রিকা জয় বাংলা নিউজ ডট কম ( www.joibanglanews.com)এর জন্য জরুরী ভিত্তিতে দেশের বিভিন্ন জেলা, উপজেলা/থানা এবং বিশ্ববিদ্যালয় ভিত্তিক (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি আবশ্যক। আগ্রহী প্রার্থীদের পাসপোর্ট সাইজের ১ কপি ছবি, জাতীয় পরিচয় পত্রের ফটোকপি, অভিজ্ঞতা ( যদি থাকে) উল্লেখ পূর্বক জীবন বৃত্তান্ত এবং মোবাইল নাম্বার সহ ইমেইলে ( joibanglanews@gmail.com ) আবেদন করতে হবে।
মণিরমাপুরের ভরতপুর গ্রামের একরামুল হত্যা মামলায় হেলাল উদ্দিনের স্বীকারোক্তি জবানবন্দি

মণিরমাপুরের ভরতপুর গ্রামের একরামুল হত্যা মামলায় হেলাল উদ্দিনের স্বীকারোক্তি জবানবন্দি

জয় বাংলা নিউজ প্রতিবেদক:

মণিরমাপুরের ভরতপুর গ্রামের একরামুল ইসলাম হত্যা মামলায় হেলাল উদ্দিন আদালতে স্বীকারোক্তি জবানবন্দি দিয়েছে। মামীর সাথে পরোকীয়া করায় মামা কামরুল ও আমিনুর রহমান পরিকল্পিত ভাবে এমরামুলকে হত্যা করেছিল। এমরামুলের লাশ গুম করতে সহযোগীতা করেছিল জানিয়েছে হেলাল উদ্দিন। বৃহস্পতিবার সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রে পলাশ কুমার দালাল আসামির এ জবানবন্দি গ্রহণ শেষে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন। হেলাল উদ্দিন ষোলখাদা গ্রামের আবু কালাম দফাদারের ছেলে।
হেলাল উদ্দিন জানিয়েছে, তার মামা কামরুলের স্ত্রীর সাথে ইকরমুলের পরোকিয়া ছিল। একরামুল নিষেধ করলেও বিষয়টি সে কর্ণপাত করে না। চলতি বছরের ২৮ মার্চ রাতে তার মামা আমিনুর রহমান ও কামরুল ইসলাম ফোন করে ইমরামুলকে হত্যার বিষয়টি তাকে জানায়। এরপর তারা ইকরামুলের লাশ বস্তায় ভরে মোটরসাইকেলে তার গ্রামের নিয়ে যায়। এরাতে তারা তিনজন মদনপুর শৈলীর মাঠের একটি পুকুর পাড়ে গর্ত করে একরামুলের লাশ মাটি চাপা দিয়ে রেখে ছিল বলে জানিয়েছে।
মামলার অভিযোগ জানা গেছে, চলতি বছরের ২৮ মার্চ রাতে একরামুল নিখোঁজ হয়। এ ব্যাপারে থানায় জিডি করা হলে পিবিআই ৩০ মার্চ কামরুল ও তার ভাই আমিনুর রহমানকে আটক ও তাদের স্বীকারোক্তিতে ইকরামুলের লাশ উদ্ধার করা হয়। এব্যাপারে নিহতের চাচা আসাদুজ্জামান বাদী হয়ে আটক দুইজনসহ ৭ জনের নামউল্লেখসহ অপরিচিত ব্যক্তিদের আসামি করে মণিরামপুর থানায় হত্যা মামলা করেন। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা পিবিআই’র এসআই সৈয়দ রবিউল ইসলাম আটক দুইজনকে আদালতে সোপর্দ করলে হত্যার সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে আদালতে জবানবন্দি দেয়। আসামিদের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে হেলালকে আটক ও রিমান্ড শেষে বৃহস্পতিবার আদালতে সোপর্দ করেন তদন্তকারী কর্মকর্তা। হেলাল নিহত একরামুলের লাশ গুমের ব্যাপারে দুই মামাকে সহযোগীতা করেছিল বলে জানিয়েছে।

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published.




© All rights reserved  2019 Joibanglanews.com এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা নিষেধ।
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
Translate »