মঙ্গলবার, ২৮ Jun ২০২২, ০৫:৫৮ অপরাহ্ন

প্রতিনিধি আবশ্যক :
বহুল প্রচারিত অনলাইন পত্রিকা জয় বাংলা নিউজ ডট কম ( www.joibanglanews.com)এর জন্য জরুরী ভিত্তিতে দেশের বিভিন্ন জেলা, উপজেলা/থানা এবং বিশ্ববিদ্যালয় ভিত্তিক (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি আবশ্যক। আগ্রহী প্রার্থীদের পাসপোর্ট সাইজের ১ কপি ছবি, জাতীয় পরিচয় পত্রের ফটোকপি, অভিজ্ঞতা ( যদি থাকে) উল্লেখ পূর্বক জীবন বৃত্তান্ত এবং মোবাইল নাম্বার সহ ইমেইলে ( joibanglanews@gmail.com ) আবেদন করতে হবে।
ব্যবসায়ীদের অভিনব কৌশল, পান থেকে চুন ঘসলেই দ্রব্যের দাম বৃদ্ধি আমজানতার মোড় ঘোরানোর পায়তারা কী?

ব্যবসায়ীদের অভিনব কৌশল, পান থেকে চুন ঘসলেই দ্রব্যের দাম বৃদ্ধি আমজানতার মোড় ঘোরানোর পায়তারা কী?

হারুন অর রশীদ, যশোর:
আমজনতার মতামত ঘুরানোর অভিনব কৌশল অবলম্বন করছে দেশের মধ্যে হাতে গোনা কয় একটি বড় ব্যবসায়ী সিন্ডিকেট, নিয়ন্ত্রন করছে পুরো ব্যবসায়ীদের তাদের মর্জির উপর নির্ভর করে বাজারের বিভিন্ন পন্য দামের উর্দ্ধনপত্তন। সম্প্রতি ইউক্রেন যুদ্ধ কে পুঁজি বানিয়ে ভোজ্য তেল থেকে শুরু করে, চাল, ডাল সহ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্য মূল্য বৃদ্ধি করে ভোক্তাদের কাছ থেকে হাতিয়ে নিচ্ছে হাজার হাজার কোটি টাকা।

এক ডিলে দুই পাখি মারার মতো কাজ করছে একটি চক্র, যারা রয়েছে ধরা ছোয়ার বাইরে, আগামিতে জাতীয় নির্বাচন, এ নির্বাচনে পূর্বে চক্রটি দেশের মধ্যে মানুষের না বিশ্বাস করে তুলছে আমজনতাদেরকে, সাধারন মানুষ চাই দু বেলা দু মুটো ভাত তাদের স্বপ্ন হিমালয়ের চুড়াই উঠার জন্য নয়, যাদের স্বপ্ন চুড়াই উঠার তারা কৌশল অবলম্বন করছে মানুষের পেটে লাথী মেরে, যাতে সরকার বেকায়দায় পড়তে পারে, জাতির জনকের স্বপ্ন ছিল দেশ গড়ার স্বপ্ন ছিল খেটে খাওয়া মানুষের মুখে হাসি ফোটানোর, সেই স্বপ্ন যখন জাতির জনকের কন্যা মানবতার মাতা জননেত্রী শেখ হাসিনা তিল তিল করে দেশ টাকে এগিয়ে নিয়ে বিশ্বের দরবারে মাতা উচু করে দাড় করিয়েছেন। ঠিক সেই মূহুর্তে এক শ্রেনীর অসাধু ব্যবসায়ীরা সিন্ডিকেট করে দ্রব্য মূল্যের দাম বৃদ্ধি করে মানুষকে বোকা বানানোর পায়তারা লিপ্ত হয়েছে। জাতীয় গনমাধ্যম চ্যানেলে গুলোতে সে ভাবে তেল মুজদ উদ্ধার করা সহ জরিমানা করা হচ্ছে। এতে উক্ত ব্যবসায়ীরা তাদের মুনাফা তোলার জন্য সেই সাধারন মানুষের উপর চাপে, পন্যের ৩ গুন দাম, ফলশ্রুতিতে এ সমস্ত ব্যবসায়ীরা পাকাল মাছের মতো বেরিয়ে যায় তাই প্রয়োজন গুদামজাত করা ব্যবসায়ীদের কে কঠোর হস্তদমন সহ সিলগালা করা, তাহলে হয়তো কিছুটা হলেও নিয়ন্ত্রন আসতে পারে বলে ভোক্তারা মন্তব্য করেছেন।

অনেকই বলছেন বাজার নিয়ন্ত্রন টাই হচ্ছে প্রধান কাজ, সন্ত্রাস মুক্ত হচ্ছে মাদক মুক্ত হচ্ছে মুক্ত বাজার যদি হয় জাতির জনকের স্বপ্ন আবার নুতন করে জাগ্রত হবে বলে সাধারন মানুষের আশা। দলের মধ্যে হোক বা বাইরে হোক, সে যে সিন্ডিকেট হোক না কেন তাকে আইনের আওতায় আনা সহ তার মুখোশ উম্মোচন করা বাঞ্চনীয়, তা না হলে এ চক্রটি পান থেকে চুন ঘোসলেই তাদের আখের গোছানোর জন্য বাস্ত হয়ে পড়ে, দেশ জাতির কথা ভাবার সময় তাদের কাছে নাই, বানার বেষ্টনিতে ছবি দিয়ে আর্দশের রাজনীতির ফুলঝুরি বক্তব্য দিয়ে শেষ, বলা বাহুল্য সময়ের আগে গভীর থেকে গভীরে গেলে এদের আসল রহস্য বেরিয়ে আসবে বলে অভিজ্ঞ মহল মনে করেন।

 

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published.




© All rights reserved  2019 Joibanglanews.com এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা নিষেধ।
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
Translate »