বৃহস্পতিবার, ১৯ মে ২০২২, ০৮:৫৪ অপরাহ্ন

প্রতিনিধি আবশ্যক :
বহুল প্রচারিত অনলাইন পত্রিকা জয় বাংলা নিউজ ডট কম ( www.joibanglanews.com)এর জন্য জরুরী ভিত্তিতে দেশের বিভিন্ন জেলা, উপজেলা/থানা এবং বিশ্ববিদ্যালয় ভিত্তিক (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি আবশ্যক। আগ্রহী প্রার্থীদের পাসপোর্ট সাইজের ১ কপি ছবি, জাতীয় পরিচয় পত্রের ফটোকপি, অভিজ্ঞতা ( যদি থাকে) উল্লেখ পূর্বক জীবন বৃত্তান্ত এবং মোবাইল নাম্বার সহ ইমেইলে ( joibanglanews@gmail.com ) আবেদন করতে হবে।
রাজকে পেয়ে যে কারণে ভাগ্যবান পরীমনি

রাজকে পেয়ে যে কারণে ভাগ্যবান পরীমনি

বিনোদন ডেস্ক : শুটিং থেকে বিরতিতে আছেন অনেকদিন। মা হওয়ার সময়টাতে কোনো ঝুঁকি নিতে চান না ঢাকাই সিনেমার চিত্রনায়িকা পরীমনি। স্বামী অভিনেতা শরিফুল রাজ ও নানাকে নিয়ে ঈদ কাটাতে গেছেন কক্সবাজার। সেখান থেকে পোস্ট করছেন নানা রকম ছবি।

বিয়ের পর এটাই তাদের প্রথম অবকাশ যাপন পরী ও রাজ। তাই এ ভ্রমণকে হানিমুন বললেও ভুল হবে না। কক্সবাজার যাওয়ার পর থেকে প্রতিদিনই রোম্যান্টিক ছবি শেয়ার করছেন তারা। সঙ্গে জুড়ে দিচ্ছেন ভালোবাসা মাখানো শব্দমালা।

বুধবার (১১ মে) নতুন ফটোশুটের কয়েকটি ছবি আপলোড করেছেন চিত্রনায়িকা পরীমনি।

যেখানে দেখা যায়, সৈকতে থাকা একটি নৌকার পাশে দাঁড়িয়ে আছেন রাজ-পরী। দু’জনের গায়ে একই নকশার শার্ট। রাজ পরেছেন সাদা প্যান্ট, আর পরীর পরনে হলুদ শর্টস। একে-অপরকে প্রেমময় ভঙ্গিমায় জড়িয়ে আছেন।

সেখানে ক্যাপশনে পরীমনি জানিয়েছেন, জীবনে রাজকে পেয়ে ভাগ্যবান তিনি। কারণ রাজ একজন উপযুক্ত সঙ্গী। পরীমনি লিখেছেন, ‘আমি ভাগ্যবান, জীবন কাটানোর জন্য উপযুক্ত সঙ্গী খুঁজে পেয়েছি।’

কয়েক ঘণ্টায় পরীর এই পোস্টে ৯২ হাজারের বেশি রিঅ্যাকশন পড়েছে। তবে কোনো মন্তব্য নেই। কারণ কমেন্ট বক্স নায়িকা নিজেই বন্ধ রেখেছেন।

রাজ ও পরী বিয়ে করেছেন গত বছরের ১৭ অক্টোবর। তবে সেটা ছিল একান্ত গোপনে। তাই পারিবারিকভাবে গত জানুয়ারিতে ফের বিয়ে করেন তারা। এরপর জমকালো আয়োজনে বিবাহোত্তর সংবর্ধনাও হয়। বর্তমানে পরীমনি অন্তঃসত্ত্বা। কয়েকদিন আগে কক্সবাজারে বেবি বাম্পসহ ফটোশুট করেছেন পরী।

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published.




© All rights reserved  2019 Joibanglanews.com এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা নিষেধ।
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
Translate »