মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ০১:৪০ পূর্বাহ্ন

প্রতিনিধি আবশ্যক :
বহুল প্রচারিত অনলাইন পত্রিকা জয় বাংলা নিউজ ডট কম ( www.joibanglanews.com)এর জন্য জরুরী ভিত্তিতে দেশের বিভিন্ন জেলা, উপজেলা/থানা এবং বিশ্ববিদ্যালয় ভিত্তিক (খালি থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি আবশ্যক। আগ্রহী প্রার্থীদের পাসপোর্ট সাইজের ১ কপি ছবি, জাতীয় পরিচয় পত্রের ফটোকপি, অভিজ্ঞতা ( যদি থাকে) উল্লেখ পূর্বক জীবন বৃত্তান্ত এবং মোবাইল নাম্বার সহ ইমেইলে ( joibanglanews@gmail.com ) আবেদন করতে হবে।
শিরোনাম :
ট্রেনের নিচে ঝাপিয়ে জীবম দিলেন ৪ সন্তানের জননী আগামী ২০ মে থেকে ভোটার তালিকা হালনাগাদ কার্যক্রম শুরু অর্থের অপচয়রোধ নিশ্চিত করতে হবে… প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সারাদেশে ফ্যামিলি কার্ডের মাধ্যমে ভর্তুকি মূল্যে নিত্যপণ্য বিক্রি শুরু করে টিসিবি সমুদ্রে ৬৫ দিন মৎস্য আহরণ বন্ধ সারাদেশে একদিনে আট জন ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে ভর্তি ভারতে পি কে হালদারের শাস্তি হতে পারে… পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. আব্দুল মোমেন রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ খাদ্যপণ্যে প্রভাব ফেলেছে…বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বড়াইগ্রামে মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে র‍্যাব নাজমুলকে গ্রেফতার যৌতুক দাবি ও নির্যাতনের অভিযোগে আরআরএফ’র কর্মকর্তা সবুজের বিরুদ্ধে যশোর আদালতে মামলা
মেঝেতে বসে খাওয়ার যত উপকারিতা

মেঝেতে বসে খাওয়ার যত উপকারিতা

জয় বাংলা নিউজ ডেস্ক:
এখন মেঝেতে বসে খাওয়ার চল প্রায় নেই বললেই চলে। আজকের দিনে প্রায় প্রত্যেক বাড়িতেই টেবিল-চেয়ারে বসে খাওয়ার চল।কিন্তু স্বাস্থ্য ভালো রাখতে পুরানো অভ্যাস ফেরানোর পরামর্শ দিচ্ছেন চিকিৎসকরা। মাটিতে বসে খাওয়ার ফলে স্বাস্থ্যের একাধিক উপকার হয়।

জেনে নিন:

মেঝেতে বসে খাওয়ার সময় আমরা যেভাবে হাঁটু ভাজ করে বসি, সেটা হল যোগাসনের ভঙ্গি। সুতরাং একই সময়ে বসা, খাওয়া এবং যোগাসনও হয়ে যায়। এই ভাবে বসলে পেটের তলদেশে চাপ পড়ে এবং এই ভঙ্গি মানসিক উদ্বেগ থেকেও মুক্ত করে। এই ভাবে বসলে ভালো হজম হয়। এই অবস্থানে বসে, আমরা খাওয়ার জন্য সামনের দিকে অনেকটা ঝুঁকি এবং তারপর খাবার গেলার জন্য সোজা হয়ে যাই। এইভাবে ক্রমাগত করার ফলে আমাদের পেটের পেশীগুলি সক্রিয় হয়ে ওঠে এবং হজম শক্তি আরও ভালো করে।

সাধারণত অতিরিক্ত খাওয়ার ফলে ওজন বাড়তে শুরু করে। ভেগাস নার্ভ মস্তিষ্কে সংকেত পাঠায় যে আপনি পরিতৃপ্ত হয়েছেন কি না বা আপনার পেট ভরেছে কি না। কিন্তু টেবিল-চেয়ারে বসে খেলে, এই স্নায়ু ঠিকমতো কাজ করে না। ব্রেনে সংকেত পাঠাতে পারে না। আর এমনটা হওয়ার কারণে বেশি মাত্রায় খাওয়া হয়ে যায়, ফলে ওজন বাড়ে। খাওয়ার সময় মেঝেতে বসলে এই স্নায়ু ভালোভাবে কাজ করে, ফলে অতিরিক্ত খাওয়ার সুযোগ থাকে না।

এই অভ্যাসটি আমাদের শরীরকে আরও শক্তিশালী এবং ফ্লেক্সিবল করে তুলতে পারে। এতে পা, হাঁটু, নিতম্ব, কোমর, মেরুদণ্ড, বুক এবং গোড়ালি প্রসারিত করে, যার ফলে এই অংশগুলো আরও ফ্লেক্সিবল হয়। এইভাবে বসার সময় হাঁটু যেভাবে বাঁকাতে হয়, তাতে হাঁটুর ভালো ব্যায়াম হয়। শরীরের নীচের অংশের গাঁটগুলি আরও সক্রিয় হয়ে ওঠে। ফলে কোনও ব্যথা বা বেদনা হওয়ার আশঙ্কা থাকে না। কিন্তু চেয়ারে বেশিক্ষণ বসে থাকলে পিঠে, নিতম্বে ব্যথা হয় এবং সেগুলো শক্ত ও দুর্বল হয়ে পড়ে।

ইউরোপিয়ান জার্নাল অফ প্রিভেনটিভ কার্ডিওলজিতে প্রকাশিত একটি গবেষণা অনুসারে, যারা ক্রস-লেগড পজিশনে বসেন এবং কোনও সাপোর্ট ছাড়াই উঠতে পারেন, তাদের অনেক দিন বাঁচার সম্ভাবনা বেশি থাকে। কারণ কোনও সাপোর্ট ছাড়াই নীচ থেকে উঠতে বেশ শক্তি এবং ফ্লেক্সিবিলির প্রয়োজন হয়।

ভালো হজম হওয়ার জন্য শরীরে সঠিক রক্ত সঞ্চালন হওয়া খুবই প্রয়োজন। এই ভঙ্গিতে বসে থাকার ফলে শরীরের পেশী শক্তিশালী হয় এবং শরীরের রক্তসঞ্চালনও ঠিক মতো হয়। তাছাড়া, মাটিতে বসলে শরীরে অক্সিজেন সরবরাহের পরিমাণও বেড়ে যায়। যার প্রভাব পড়ে সোজা হার্টের ওপর। তাতে হার্ট ভালো থাকে।

সূত্র: বোল্ডস্কাই

 

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published.




© All rights reserved  2019 Joibanglanews.com এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা নিষেধ।
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
Translate »