সোমবার, ১৯ এপ্রিল ২০২১, ০৩:১৭ পূর্বাহ্ন

যশোর জেনারেল হাসপাতালে ডাক্তারের দুব্যবহারে কেঁদে ফেললেন সালমা

যশোর জেনারেল হাসপাতালে ডাক্তারের দুব্যবহারে কেঁদে ফেললেন সালমা

ফাইল ছবি

শহিদ জয়: যশোর জেনারেল হাসপাতালের ডাক্তাররের বিরুদ্ধে রোগী ও রোগীর স্বজনদের সাথে দুর্ব্যবহার করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।
অভিযোগে জানা গেছে, যশোরের অভয়নগর উপজেলার পায়রা ইউনিয়নের সমুসপুর গ্রামে বখতিয়ার শেখের স্ত্রী সামলা বেগম শনিবার সকালে যশোর জেনারেল হাসপাতালে আসেন। টিকিট কেটে (যার নম্বর ৪৭১০৮/০৮) ১১৩ নম্বর কক্ষে গাইনি ডাক্তার যশোর মেডিকেল কলেজের সহযোগী অধ্যাপক প্রকাশ চন্দ্র মজুমদারের নিকট যান। সালাম বেগম জানান, ইতোপূর্বে সিজারিয়ানের সময় তার বাচ্ছা মারা যায়। তারপর থেকে পিঠে ও তলপেটে প্রচন্ড ব্যাথা। যার কারণে তিনি ডাক্তার দেখাতে আসেন।
এসময় ডাক্তার প্রকাশ চন্দ্র মজুমদার সালমাকে অভয়নগর হাসপাতালে না গিয়ে যশোরে কেন আসলেন তা নিয়ে রীতিমত দুর্ব্যবহার করতে থাকেন। তার গরীবদের কোন চিকিৎসা দেয়া ঠিক না, তাদের স্বামীতে তাড়িয়ে দেয় ইত্যাদি বাজে কথা বলে দুই একটি ওষুধ লিখে তাড়াতাড়ি বের করে দেন।
একই ভাবে শনিবার যশোর সদর উপজেলার চাঁচড়া এলাকার হামিদা, বাঘারপাড়ার রেখা, মণিরামপুরের তাসফিয়ার সাথে ডাক্তার প্রকাশ চন্দ্র মজুমদার দুর্ব্যবহার করেছেন।
সালমা ডাক্তারের কক্ষ থেকে বের হয়ে স্বজনদের সামনে কেঁদে ফেলেন।
এভাবে দীর্ঘদিন ধনে ডাক্তার প্রকাশ চন্দ্র মজুমদ আইট ডোরে রোগী দেখতে এসেই রোগী বা রোগীর স্বজনদের দুর্ব্যবহার করে আসছেন।
এ ব্যাপারে ডাক্তার প্রকাশ চন্দ্র মজুমদারের মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তার মোবাইল ফোন বন্ধ পাওয়া গেছে।
এদিকে যখনই তার বিরুদ্ধে পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশ হয় তখনই শহরের বিভিণœ ধরণের লোকজন দিয়ে নিউজ বন্ধ করার জন্য নানা ভাবে সাংবাদিকদের অনুরোধ করেন।

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved  2019 Joibanglanews.com এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা নিষেধ।
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
Translate »