শনিবার, ০৬ মার্চ ২০২১, ০৭:৪১ পূর্বাহ্ন

১৮ পদে বিএফইউজে’র দ্বিবার্ষিক কাউন্সিল ও নির্বাচন মহাসচিব পদে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত

১৮ পদে বিএফইউজে’র দ্বিবার্ষিক কাউন্সিল ও নির্বাচন মহাসচিব পদে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত

 

প্রেস বিজ্ঞপ্তি: বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে)’র দ্বিবার্ষিক কাউন্সিল ও নির্বাচন (১৪ নভেম্বর) শনিবার জাতীয় প্রেস ক্লাব মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হবে। সকাল ৯টায় দ্বিবার্ষিক কাউন্সিলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বিএনপি’র মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। বেলা ২টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত ভোট গ্রহণ করা হবে।

বিএফইউজে নির্বাচনকে ঘিরে প্রচার প্রচারণা এখন তুঙ্গে। নির্বাচনে দু’টি প্যানেল প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে। একটির নেতৃত্ব দিচ্ছেন বর্তমান সভাপতি, দৈনিক সংগ্রামের চীফ রিপোর্টার ও সম্প্রতি একটি রাষ্ট্রদ্রোহ মামলায় গ্রেফতার হওয়া রুহুল আমিন গাজী। অপর প্যানেলের নেতৃত্বে রয়েছেন বর্তমান মহাসচিব ও সরকারের রোষানলে পড়ে বন্ধ হওয়া দৈনিক আমার দেশ এর নগর সম্পাদক এম আবদুল্লাহ।

নির্বাহী পরিষদের ১৮টি পদে ভোট গ্রহণ করা হবে। ১৯টি পদের মধ্যে অপর পদটি মহাসচিবের। এ পদের একজন প্রতিদ্বন্দ্বী আবদুস শহীদ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করায় অপর প্রার্থী নুরুল আমিন রোকনকে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত ঘোষণা করেছে নির্বাচন কমিশন। নুরুল আমিন রোকন এম আবদুল্লাহ পরিষদের প্রার্থী। #

নির্বাচনটি হওয়ার কথা ছিল গত ১২ এপ্রিল। তার আগের দিন ১১ এপ্রিল দ্বিবার্ষিক কাউন্সিলের দিন ধার্য ছিল। কিন্তু ৮ মার্চ থেকে মহামারি করোনাভাইরাস বাংলাদেশে হানা দেওয়ার প্রেক্ষিতে প্রথমে নির্বাচন পিছিয়ে ১০ জুন পুনঃনির্ধারণ করা হয়। পরে করোনা সংক্রমণ পরিস্থিতি অবনতি ঘটায় নির্বাচন অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত করা হয়। গত ৩ অক্টোবর বিএফইউজের নির্বাহী পরিষদের সভায় ৩১ অক্টোবর কাউন্সিল ও নির্বাচন অনুষ্ঠানের দিন ধার্য করা হয়। ২১ অক্টোবর বর্তমান সভাপতি রুহুল আমিন গাজী গ্রেফতার হলে তাঁর জামিনের অপেক্ষায় নির্বাচন ২ সপ্তাহ পিছিয়ে ১৪ নভেম্বর নির্ধারণ করা হয়।

এই নির্বাচনকে ঘিরে জাতীয় প্রেস ক্লাব থেকে শুরু করে বিভাগীয় ও জেলা পর্যায়ের ইউনিয়নগুলোও প্রচার-প্রচারণায় সরগরম। দুই প্যানেলের প্রার্থীরা প্রতিটি সংবাদপত্র ও অন্যান্য গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠানে প্রচারাভিযান চালিয়েেেছন। শ্রম আইন ও গঠনতন্ত্র অনুযায়ী বিএফইউজেতে ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন প্রতি দশ জনে একজন করে নির্বাচিত কাউন্সিলর বা ডেলিগেট। প্রতিটি ইউনিয়ন থেকে ২০১৯ সালের ৩১ ডিসেম্বরের সদস্য সংখ্যার ভিত্তিতে এই কাউন্সিলর নির্বাচন করে বিএফইউজে’র কাছে পাঠানো হয়েছে।

এবার মোট ৩২৮ জন কাউন্সিলর ভোট দেওয়ার কথা ছিল। তবে একজন কাউন্সিলর আবদুস শহীদ ইতিমধ্যে ইন্তিকাল করায় এখন ৩২৭ জন ভোটার রয়েছেন। নির্বাচনের সকল প্রস্তুতি ইতিমধ্যে সম্পন্ন হয়েছে। নির্বাচন পরিচালনা করবেন সিনিয়র সাংবাদিক কায়কোবাদ মিলনের নেতৃত্বে ৫ সদস্যের কমিটি। নির্বাচন কমিটির অপর সদস্যরা হচ্ছেন- দৈনিক সংগ্রামের বার্তা সম্পাদক সাদাত হোসাইন, দৈনিক দিনকালের সহকারি সম্পাদক আবুল হোসেন খান মোহন, যশোর প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আহসান কবির ও চট্টগ্রামের সিনিয়র সাংবাদিক মো. ওসমান গনি।

কাউন্সিল ও নির্বাচন সফল করার জন্য আহবান জানিয়েছেন বিএফইউজের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি নুরুল আমিন রোকন ও মহাসচিব এম আবদুল্লাহ।

বিএফইউজের দপ্তর সম্পাদক আবু ইউসুফ এক প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এই তথ্য জানিয়েছেন।

 

খবরটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved  2019 Joibanglanews.com এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা নিষেধ।
Design & Developed BY ThemesBazar.Com
Translate »